মঙ্গলবার,  ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ,  ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ,  রাত ৩:২১

চট্টগ্রামে ইয়াবা পাচারের দায়ে এসআই গ্রেফতার

সেপ্টেম্বর ১, ২০১৮ , ২১:৫২


চট্টগ্রাম প্রতিনিধি
চট্টগ্রামে ইয়াবা উদ্ধারের ঘটনায় এসআই বদরুদ্দোজাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। প্রাথমিক তদন্তে ইয়াবা পাচারের সাথে সম্পৃক্ততা পাওয়া যাওয়ায় তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে বলে জানান মিরসরাই থানার ওসি সাইরুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ইয়াবা উদ্ধারের পর থেকে এসআই বদরুদ্দোজাকে খুলশী থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছিল। আমরা প্রাথমিকভাবে ইয়াবা পাচারের সাথে তার সম্পৃক্ততার প্রমাণ পেয়েছি। মিরসরাইয়ের নিজামপুরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বাসার ফার্নিচার বহনকারী একটি ট্রাকের ফাইল কেবিনেট থেকে ২৯ হাজার ২৮৫টি ইয়াবা উদ্ধার করে র‌্যাব। ওই কেবিনেট থেকে ঢাকা জেলা গোয়েন্দা পুলিশ থেকে চট্টগ্রাম নগর পুলিশে বদলি হয়ে আসা এসআই বদরুদ্দোজার নাম, বিপি নম্বর ও মোবাইল নম্বরসহ সিল লাগানো একটি ডায়েরি উদ্ধার করা হয়। এছাড়াও চালকের কাছ থেকেও বদরুদ্দোজার ভিজিটিং কার্ড পাওয়া যায়।

এঘটনায় র‌্যাবের পক্ষ থেকে চালক ও সহকারীকে আসামি করে মিরসরাই থানায় একটি মাদক আইনে মামলা করা হয়েছিল। নগরীর হাইলেভেল রোডে ওই কর্মকর্তার বাসায় তল্লাশি করে এসআই বদরুদ্দোজাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য খুলশী থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছিল।

সাড়ে ৪ হাজার ইয়াবাসহ তিনজন গ্রেফতার: চট্টগ্রামে সাড়ে চার হাজার পিস ইয়াবাসহ তিন ‘মাদক কারবারীকে’ গ্রেফতার করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সকালে ও ভোরে নগরীর কে সি দে রোড এবং সীতাকু- উপজেলার সোনাইছড়ি এলাকা থেকে হাইওয়ে পুলিশ ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অভিযানে তাদের গ্রেফতার করা হয়। ফাইল ছবি ফাইল ছবি গ্রেফতার তিনজন হলেন- মো. ফরিদ মিয়া (২২), মো. আব্দুল্লাহ (২০) ও মো. সালেহ জহুর লিটন (৩৮)। মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক শামীম হোসেন জানান, ভোর রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কে সি দে রোড থেকে ফরিদ মিয়া ও আব্দুল্লাহকে আটক করা হয়। পরে তাদের তল্লাশি করে টিস্যু পেপার মোড়ানো অবস্থায় ফরিদের প্যান্টের পকেট থেকে দুই হাজার ৮৫০ পিস ও আব্দুল্লাহর পকেট থেকে এক হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এদিকে সোনাইছড়ির ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে ঢাকাগামী একটি বাসে তল্লাশি চালিয়ে বাস যাত্রী সালেহ জহুর লিটনকে ৬০০টি ইয়াবাসহ গ্রেফতার করা হয় বলে জানান বার আউলিয়া হাইওয়ে পুলিশের পরিদর্শক আহসান হাবিব। গ্রেফতার হওয়াদের মধ্যে ফরিদ ও আব্দুল্লাহর বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক তপন কান্তি শর্মা বাদি হয়ে কোতোয়ালী থানায় ও লিটনের বিরুদ্ধে সীতাকু- থানায় মামলা করা হয়েছে।

Total View: 929

    আপনার মন্তব্য





সারাদেশ

কক্সবাজার

কিশোরগঞ্জ

কুড়িগ্রাম

কুমিল্লা

কুষ্টিয়া

খাগড়াছড়ি

খুলনা

গাইবান্ধা

গাজীপুর

গোপালগঞ্জ

চট্টগ্রাম

চাঁদপুর

চাঁপাইনবাবগঞ্জ

চুয়াডাঙা

জয়পুরহাট

জামালপুর

ঝালকাঠী

ঝিনাইদহ

টাঙ্গাইল

ঠাকুরগাঁও

ঢাকা

দিনাজপুর

নওগাঁ

নড়াইল

নরসিংদী

নাটোর

নারায়ণগঞ্জ

নীলফামারী

নেত্রকোনা

নোয়াখালী

পঞ্চগড়

পটুয়াখালি

পাবনা

পিরোজপুর

ফরিদপুর

ফেনী

বগুড়া

বরগুনা

বরিশাল

বাগেরহাট

বান্দরবান

ব্রাহ্মণবাড়িয়া

ভোলা

ময়মনসিংহ

মাগুরা

মাদারীপুর

মানিকগঞ্জ

মুন্সিগঞ্জ

মেহেরপুর

মৌলভীবাজার

যশোর

রংপুর

রাঙামাটি

রাজবাড়ী

রাজশাহী

লক্ষ্মীপুর

লালমনিরহাট

শরীয়তপুর

শেরপুর

সাতক্ষীরা

সিরাজগঞ্জ

সিলেট

সুনামগঞ্জ

হবিগঞ্জ

Flag Counter