সোমবার,  ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ,  ৫ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ,  রাত ৪:৫৪

মন্ত্রী আসবে তাই রাস্তার পাশে ২ঘন্টা দাড়িয়ে ছাত্র-ছাত্রীরা

ফেব্রুয়ারি ২০, ২০১৮ , ২৩:০৪

মিতালী শিকদার
শিক্ষা মন্ত্রীর ঘোষনা অনুযায়ী কোন রাজনৈতিক প্রোগ্রামে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের ব্যবহার করা যাবে না। সেক্ষেত্রে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার আগমন উপলক্ষে কুচাইপট্টি এবং তার আশেপাশের ইউনিয়নের সকল বিদ্যালয়ের ক্লাস বন্ধ করে শিক্ষার্থীদের সড়কের দুই পাশে দাঁড় করিয়ে রেখেছিলেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা।

২০ ফেব্রুয়ারী মঙ্গলবার সকাল ৯টা থেকে সোয়া ১১টা পর্যন্ত এই সোয়া দুই ঘণ্টা শিক্ষার্থীদেরকে রোদের মধ্যে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছে। সকাল সোয়া ১১টায় হ্যালকিপ্টার যোগে কুচাইপট্টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে পৌঁছেন ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, শরীয়তপুর জেলার গোসাইরহাট উপজেলার কুচাইপট্টি ইউনিয়নের কুচাইপট্টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের বন্যা আশ্রয়কেন্দ্র উদ্বোধন ও সুধী সমাবেশ উপলক্ষ্যে ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া মঙ্গলবার গোসাইরহাটের কুচাইপট্টি আসছেন।

মন্ত্রীকে শুভেচ্ছা জানাতে কুচাইপট্টি বাজার থেকে কুচাইপট্টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ভবনের গেট পর্যন্ত স্কুল-মাদরাসার প্রায় ৫ শতাধিক শিক্ষার্থীকে রাস্তায় রোদের মধ্যে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়।

এ ব্যাপারে চর মাইজারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মো. বায়েজিদ জানায়, আমরা ৯টায় বিদ্যালয়ে এসে মন্ত্রীর অপেক্ষায় সড়কের দুই পাশে দাঁড়িয়ে আছি। আজ ক্লাস হয়নি।

কুচাইপট্টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মো. ফারহাদ হোসেন ও কুচাইপট্টি ইসলামিয়া দাখিল মাদরাসার শিক্ষার্থী দাদন মিয়া, মাফুজা আক্তার ও কাকলিসহ অসংখ্য শিক্ষার্থী জানায়, ২ ঘণ্টা ধরে রোদে দাঁড়িয়ে আছি। আমরা ঘামিয়ে গেছি। খুব কষ্ট হচ্ছে। ক্লাস না করিয়ে আমাদের স্যাররা এখানে নিয়ে এসেছে।

এ ব্যাপারে গোসাইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহজাহান শিকদারের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, শরীয়তপুর জেলার মধ্যে কুচাইপট্টি ইউনিয়নটি হচ্ছে সবচেয়ে অবহেলিত। কোনোদিন এ ইউনিয়নে কোন মন্ত্রী আসেননি। এলাকার উন্নয়নের স্বার্থে ও মন্ত্রী আসবে এ আনন্দে খুশি হয়ে মন্ত্রী ও স্থানীয় এমপিকে স্বাগত জানাতে শিক্ষার্থীরা সড়কের দুই পাশে দাঁড়িয়েছে আছে।

এ ব্যাপারে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বলেন, যদি কোন স্কুলের শিক্ষক তার স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের দিয়ে কোন রাজনৈতিক প্রোগ্রাম সফল করার জন্য রাস্তায় দাড় করান তাহলে তদন্ত সাপেক্ষে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Total View: 1395

    আপনার মন্তব্য





সারাদেশ

কক্সবাজার

কিশোরগঞ্জ

কুড়িগ্রাম

কুমিল্লা

কুষ্টিয়া

খাগড়াছড়ি

খুলনা

গাইবান্ধা

গাজীপুর

গোপালগঞ্জ

চট্টগ্রাম

চাঁদপুর

চাঁপাইনবাবগঞ্জ

চুয়াডাঙা

জয়পুরহাট

জামালপুর

ঝালকাঠী

ঝিনাইদহ

টাঙ্গাইল

ঠাকুরগাঁও

ঢাকা

দিনাজপুর

নওগাঁ

নড়াইল

নরসিংদী

নাটোর

নারায়ণগঞ্জ

নীলফামারী

নেত্রকোনা

নোয়াখালী

পঞ্চগড়

পটুয়াখালি

পাবনা

পিরোজপুর

ফরিদপুর

ফেনী

বগুড়া

বরগুনা

বরিশাল

বাগেরহাট

বান্দরবান

ব্রাহ্মণবাড়িয়া

ভোলা

ময়মনসিংহ

মাগুরা

মাদারীপুর

মানিকগঞ্জ

মুন্সিগঞ্জ

মেহেরপুর

মৌলভীবাজার

যশোর

রংপুর

রাঙামাটি

রাজবাড়ী

রাজশাহী

লক্ষ্মীপুর

লালমনিরহাট

শরীয়তপুর

শেরপুর

সাতক্ষীরা

সিরাজগঞ্জ

সিলেট

সুনামগঞ্জ

হবিগঞ্জ

Flag Counter